ফেব্রুয়ারি ২, ২০২৩ ৬:৫২ পূর্বাহ্ণ || ডেইলিলাইভনিউজ২৪.কম

জিয়ার খেতাব বাতিল ‘মুক্তিযুদ্ধের প্রতি কলঙ্ক’

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সাবেক রাষ্ট্রপতি, বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা ও মুক্তিযুদ্ধের সেক্টর কমান্ডার জিয়াউর রহমানের রাষ্ট্রীয় খেতাব বাতিলের সিদ্ধান্ত ‘মুক্তিযুদ্ধের প্রতি কলঙ্ক’।

চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরে কোয়ারেন্টিনে থাকা বিএনপি মহাসচিব বুধবার টেলিফোনে গণমাধ্যমের সাংবাদিকদের কাছে এ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

তিনি বলেন, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল খেতাবটি বাতিলের যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে এটাকে আমি মনে করি সম্পূর্ণভাবে রাজনৈতিক প্রতিহিংসামূলক। এই সিদ্ধান্ত যারা নিয়েছেন তাদের আমি কখনোই মুক্তিযুদ্ধের প্রতি শ্রদ্ধাশীল মনে করি না। তারা স্বাধীনতার বিপক্ষে, মুক্তিযুদ্ধের বিরুদ্ধে এবং পুরোপুরিভাবে মুক্তিযোদ্ধাদের বিরুদ্ধে। এই সিদ্ধান্তের মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধের প্রতি কলঙ্ক লেপন করা হলো। আমি এই সিদ্ধান্তের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

মির্জা ফখরুল বলেন, এই খেতাবটি বাতিলের সিদ্ধান্ত জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল নিয়েছে এবং তারা সরকারকে জানাবার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এই সরকারের অপকর্ম এবং যে সমস্ত দুর্নীতির চিত্রগুলো বেরিয়ে আসছে বিভিন্নভাবে তার থেকে জনগণের দৃষ্টি দূরে সরিয়ে দেয়ার জন্যই এটা করা হয়েছে।

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধে জিয়াউর রহমানের স্মরণীয় ভূমিকার কথা তুলে ধরে মির্জা ফখরুল বলেন, স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান শুধু স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েই বসে ছিলেন না। তিনি দীর্ঘ ৯ মাস সেক্টর কমান্ডার হিসেবে দেশের ভেতর থেকে লড়াই করেছেন। বাংলাদেশের প্রতিটি মানুষ শুধু নয়, সারা পৃথিবীর মানুষ জানে যে, তার ঘোষণার মধ্য দিয়ে বাংলাদেশে স্বাধীনতার যুদ্ধ শুরু হয়েছিলো।

তিনি বলেন, এ সম্পর্কে বাংলাদেশের শুধু নয়, বাইরের বহু লেখকের বহু লেখা আছে যার প্রমাণ রয়েছে। বীর উত্তম খেতাবটি তিনি পেয়েছিলেন স্বাধীনতার পরের যে সরকার শেখ মুজিবুর রহমানের সরকার, সেই সরকারই এই খেতাব তাকে দিয়েছিলো।

Comments

comments

‘নির্বাচন সামনে রেখে পরগাছা গোষ্ঠীর তৎপরতা শুরু হয়েছে’

প্রাথমিকের জন্য ৭৮ কোটি টাকার বই কেনা হচ্ছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!