জুন ৮, ২০২৩ ৩:২৬ অপরাহ্ণ || ডেইলিলাইভনিউজ২৪.কম

গরমে শসা খেলে যে উপকার পাবেন

সূর্যের দাপটে প্রচন্ড গরমে বাইরে বের হতেই ভয় পাচ্ছেন বেশিরভাগ মানুষ। সারাদিন পর সূর্য ডুবে গেলেও কমে না গরমের তীব্রতা। বাতাস যেন বাতাস নয়, আগুনের হলকা। এমন গরমে কোনো খাবার খেলেই ঠিকভাবে প্রশান্তি আসছে না যেন। আসলে খাবার খেতে হবে বুঝেশুনে। এই গরমে তৈলাক্ত বা অতিরিক্ত মসলাদার খাবার একেবারেই খাওয়া যাবে না। এর বদলে খেতে হবে এমন খাবার, যা প্রশান্তি দেয়।

বিশেষজ্ঞরা বলেন, গরমের তীব্রতা থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য খাবারের তালিকায় পরিবর্তন আনতে হবে। যেসব খাবার পানির ঘাটতি মেটায় এবং শরীর শীতল রাখে, সেগুলো খেতে হবে। এ ধরনের খাবারের তালিকায় শুরুতেই থাকবে শসার নাম। শসায় থাকে পানি, ফাইবার, কার্ব, ম্যাগনেসিয়াম, আয়রন, ফসফরাস, পটাশিয়াম, সোডিয়াম, ভিটামিন সি, ফসফরাস, ক্যালসিয়াম, ফোলেট, লিউটিন, জিয়াজ্যানথিন, ভিটামিন কে, বিটা ক্যারোটিন এবং প্রচুর পরিমাণ অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। এটি খেলে এনার্জির ঘাটতি পূরণ হয় সেইসঙ্গে পাওয়া যায় শীতল অনুভূতি। চলুন জেনে নেওয়া যাক এই গরমে শসা খাওয়ার উপকারিতা-

পানির ঘাটতি পূরণ করে

তীব্র গরমে আমাদের শরীরে পানির ঘাটতি তৈরি হতে পারে। সেইসঙ্গে ইলেকট্রোলাইটসের ভারসাম্যও এলোমেলো হয়ে যেতে পারে। ফলস্বরূপ শরীরে নানা সমস্যা তৈরি হয়। এমন অবস্থায় উপকারী একটি খাবার হতে পারে শসা। এতে রয়েছে পর্যাপ্ত পানি। তাই শসা খেলে শরীরে পানির ঘাটতি পূরণ হয়। সেইসঙ্গে রক্ষা পাওয়া যায় পানিশূন্যতা থেকেও। এমনটাই জানিয়েছে মেডিক্যাল নিউজ টুডে। তাই এই তীব্র গরমে পানির ঘাটতি মেটাতে নিয়মিত শসা খাওয়ার অভ্যাস করুন। চাইলে শসা, লেবু, পানি ও পুদিনা পাতা দিয়ে রিফ্রেশিং ড্রিংক তৈরি করেও খেতে পারেন।

হজমের সমস্যা দূর করে

গরমে শরীরে যেসব সমস্যা দেখা দিতে পারে তার মধ্যে হজমের সমস্যা অন্যতম। এসময় খাবার ঠিকভাবে হজম হতে চায় না। ফলস্বরূপ পেট ফাঁপা, অ্যাসিডিটি, গ্যাস্ট্রিকের মতো সমস্যা বেড়ে যায়। এসব সমস্যার সহজ সমাধান দিতে পারে শসা। এতে পর্যাপ্ত ফাইবার রয়েছে। পেটের স্বাস্থ্য ভালো রাখার কাজে সাহায্য করে এই ফাইবার। তাই নিয়মিত শসা খেলে পেটের সমস্যা দূরে থাকে। এই গরমে হজমের সমস্যা থেকে বাঁচতে তাই নিয়মিত শসা খান।

হাড় ভালো রাখে

যাদের বয়স একটু বেশি, হাড়ের বিভিন্ন সমস্যায় ভুগছেন তারা। বাতজনিত নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন অনেকেই। নারীদের মধ্যে এই সমস্যায় আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি সবচেয়ে বেশি। হাড় ভালো রাখতে নিয়মিত খেতে হবে শসা। কারণ এতে আছে পর্যাপ্ত ভিটামিন কে। আমাদের শরীরকে ক্যালসিয়াম শোষণ করতে সাহায্য করে এই ভিটামিন। যে কারণে হাড় প্রয়োজনীয় ক্যালসিয়াম গ্রহণ করতে পারে। কেবল বয়স্কদের জন্যই নয়, সবার জন্যই শসা একটি উপকারী খাবার।

Comments

comments

আগামী নির্বাচনটা একটা চ্যালেঞ্জ : প্রধানমন্ত্রী

ভিসা পাননি ৪৪ হাজার হজযাত্রী

ভারতে ট্রেন দুর্ঘটনায় কয়েকজন বাংলাদেশি আহত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!